আপডেট: জুন ৩, ২০১৭   ||   ||   মোট পঠিত ১৭১ বার

অভয়নগরে ভৈরব নদে ড্রেজিং কাজের উদ্বোধন করলেন নৌ পরিবহন মন্ত্রী

অভয়নগর (যশোর)॥ যশোরের অভয়নগর উপজেলায় ভৈরব নদের খুলনা-নওয়াপাড়া নৌ-পথের ড্রেজিং কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি নৌ পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের যোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার উন্নয়নের সরকার। সেই উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় শুক্রবার দুপুরে যশোরের অভয়নগর উপজেলার নওয়াপাড়া ভৈরব নদের ড্রেজিং কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। তিনি আরো বলেন বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের আমলে দেশের নদীগুলোর প্রতি কোন ধরনের খনন কাজ করা হয়নি। পারাপারের জন্য নির্মাণ করা হয়নি একটিও ফেরি। অথচ শেখ হাসিনার সরকার দেশের প্রতিটি নদী রক্ষার্থে খনন কাজ অব্যহত রেখেছেন। দক্ষিণ অঞ্চলের সার, সিমেন্ট, কয়লার সব থেকে বড় মোকাম হিসেবে পরিচিত অভয়নগরের নওয়াপাড়া। সেই নওয়াপাড়াবাসীর প্রাণের দাবি ভৈরব নদে একটি সেতু এবং খুলনা হতে নওয়াপাড়া পর্যন্ত নদীর ড্রেজিং। সেতু নির্মাণ কাজ প্রায় সমাপ্তির পথে। আর আজ থেকে শুরু হবে খনন কাজ। অতএব আওয়ামী লীগ সরকার জনবান্ধব ও উন্নয়নের সরকার। নওয়াপাড়া হাইওয়ে থানা সংলগ্ন ফেরিঘাট এলাকায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বাংলাদেশ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন (জি) এনইউপি, এনডিপি, পিএসসি, বিএন কমোডর এম মোজাম্মেল হক। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন যশোর-৪ আসনের সংসদ সদস্য রণজিত কুমার রায়, নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব অশোক কুমার রায়, যশোর জেলা প্রশাসক ড. মো. হুমায়ন কবীর, নওয়াপাড়া পৌরসভার মেয়র সুশান্ত কুমার দাস শান্ত, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক পৌর প্যানেল চেয়ারম্যান শাহ্ ফরিদ জাহাঙ্গীর, এডিশনাল এসপি শহিদ আবু সরোয়ার ও বঙ্গ ড্রেজিং লি. এর চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম। এর আগে প্রধান অতিথি নওয়াপাড়া ফেরিঘাটে ড্রেজিং কাজের ফলক উন্মোচন করেন এবং ভৈরব নদের মধ্যে ড্রেজিং মেশিন চালিয়ে দেখেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন নওয়াপাড়া প্রেস কাবের সভাপতি আসলাম হোসেন, সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম মল্লিকসহ অভয়নগর উপজেলা ও নওয়াপাড়া পৌর আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা ও বিআইডব্লিউটি এর কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ। জানা গেছে, খুলনা থেকে নওয়াপাড়া পর্যন্ত প্রায় ৩৮ কিলোমিটার নৌ-পথে ড্রেজিং করা হবে। মোট ৪৩ কোটি ৯৫ লাখ টাকা ব্যয়ে অভ্যন্তরীণ নৌ-পথের ৫৩টি রুটে ক্যাপিটাল ড্রেজিং (যার প্রথম পর্যায়ে ২৪ রুটে ড্রেজিং) কাজ শুরু করা হবে।

তথ্যসূত্রঃ Daily Loksomaj