আপডেট: এপ্রিল ৪, ২০১৭   ||   ||   মোট পঠিত ২৩৪ বার

বদলে যাচ্ছে দৃশ্যপট- কর্মসংস্থান হবে ১০ হাজার তরুণ-তরুণীর

সাজেদ রহমান ॥ যশোরে নির্মাণাধীন শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক এখন আর স্বপ্ন নয়, সত্যি। ৩০৫ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত পার্কটি জুন মাসেই পুরোপুরি আইটি শিল্পপার্ক হিসেবে চালু হবে। আন্তর্জাতিক মানের এই সফটওয়্যার পার্কে দশ হাজার আইটি প্রফেশনাল তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থান হবে। পার্কটি ঘিরে যশোর হবে দেশের দক্ষিণাঞ্চলের তথ্য ও প্রযুক্তিনির্ভর অর্থনৈতিক অঞ্চল। এতে বদলে যাচ্ছে দৃশ্যপট। ইতোমধ্যে দেশী-বিদেশী বিনিয়োগকারীরা পার্কে কাজ শুরু করেছে।

ইনফরমেশন টেকনোলজি (আইটি) শিল্প স্থাপনের কাজ বাস্তবায়নের জন্য ২০১০ সালে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক অথরিটি প্রতিষ্ঠা করা হয়। ২০১০ সালের ২৭ ডিসেম্বর যশোরে এক জনসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি আইটি পার্ক স্থাপনের ঘোষণা করেছেন। সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে ৩০৫ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মাণ করা হচ্ছে ‘শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক, যশোর।’ প্রকল্পটি শুরু হয় ২০১৩ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে। এরপর অবকাঠামোগত কাজ শুরু হয় ২০১৪ সালের ডিসেম্বরে। গত আড়াই বছরে স্বপ্নের সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক বাস্তবে রূপ লাভ করেছে। আর কদিন পরেই পুরোদমে কার্যক্রম শুরু হবে।

‘শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক যশোর’ প্রকল্পের পরিচালক (যুগ্ম সচিব) জাহাঙ্গীর আলম বলেন, শহরের শংকরপুর এলাকায় ১২ একর ১৩ শতাংশ জমির ওপর নির্মাণ করা হচ্ছে পার্কটি। এই পার্কে ২ লাখ ৩২ হাজার বর্গফুট আয়তনের ১৫ তলা ভবন, ৯৮ হাজার বর্গফুট আয়তনের ১২তলা আবাসিক ভবন, ২৫ হাজার বর্গফুট আয়তনের ১টি বেজমেন্ট ফ্লোরসহ ৩তলা মাল্টিপারপাস ভবন নির্মাণকাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে। এছাড়াও ৩৩ কেভিএ সাব-স্টেশন, ওয়াই-ফাই, ভিডিও কনফারেন্স, ডিজেস্টার রিকভারি ডাটা সেন্টার, জিম, ওয়াকওয়ে, সুপ্রশস্থ ওয়াটারবডি, গ্রিন জোন ইত্যাদি সুযোগ-সুবিধা থাকবে পার্কে।

জাহাঙ্গীর আলম আরও বলেন, শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কটি আন্তর্জাতিক মানে করে গড়ে তোলা হয়েছে। ৩টি জাপানী কোম্পানিসহ ১৩টি আইটি কোম্পানিকে পার্ক বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। আরও ২৪টি কোম্পানি বরাদ্দের জন্য আবেদন করেছে। সেগুলো যাচাই-বাছাই পর্যায়ে রয়েছে। দেশী-বিদেশী অনেক কোম্পানি ব্যবসা করার জন্য যোগাযোগ করছে। তরুণ-তরুণীদের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে হাই-টেক পার্ক তৈরি করছে সরকার।

সম্প্রতি যশোর শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক প্রকল্পের অগ্রগতি পরিদর্শনে করেছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। প্রকল্প পরিদর্শন শেষে আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, আগামী ৩০ মের মধ্যে শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কের নির্মাণকাজ পুরোপুরি সম্পন্ন হবে। এরপর উদ্বোধনের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আবেদন করা হবে। পার্কটি চালু হলে দশ হাজার আইটি প্রফেশনাল তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় রূপকল্প ২০২১ বাস্তবায়ন হচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে যশোরে নির্মাণ করা হচ্ছে সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক। এটি চালু হলে দেশের দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের আইটি হাব হিসেবে গড়ে উঠবে যশোর। আগামী ৩০ জুনের মধ্যে পার্কটি পুরোপুরি আইটি শিল্পের জন্য প্রস্তুত হবে।

তথ্যসূত্রঃ dailyjanakantha