আপডেট: মার্চ ২১, ২০১৭   ||   ||   মোট পঠিত ১৫৭ বার

নড়াইলে রুম মাস্টার পালঙ্ক দেখতে দর্শনার্থীদের ভীড় বাড়ছেই

আব্দুল কাদের, নড়াইল : নড়াইলে রুম মাস্টার পালঙ্ক দেখতে দর্শনার্থীদের ভীড় বাড়ছেইরুম মাস্টার পালঙ্ক (খাট) দেখতে প্রতিদিন দর্শনার্থীদের ভীড় বেড়েই চলেছে। নড়াইলের প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলে ছুটে যাচ্ছেন এই পালং দেখতে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার নানা বয়সী মানুষ। নড়াইলের কাঠমিস্ত্রী আশরাফুল শেখ (৩৫) অত্যন্ত সুদর্শন এ পালঙ্কটি তৈরি করেছেন। আপন মনের মাধূরী মিশিয়ে নিপূণ হাতে তৈরি করা এ খাটের নাম দিয়েছেন রুম মাস্টার পালঙ্ক (খাট)।
আশরাফুল শেখ নড়াইল সদর উপজেলার হবখালি ইউনিয়নের কোমখালি গ্রামের দুদু শেখ’র ছেলে। দীর্ঘ ১৫ মাস কঠোর পরিশ্রম করে তিনি এ খাট তৈরি করেছেন। প্রায় এক যুগ ধরে এ পেশায় আছেন আশরাফুল। কাঠ মিস্ত্রী হিসেবে এলাকায় তার ব্যাপক সুখ্যাতি রয়েছে। নিজ এলাকায় সিঙ্গিয়া বাজারে বৃষ্টি ফার্নিচার নামে তার একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। ওই প্রতিষ্ঠানেই রাখা হয়েছে পালঙ্কটি। দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ লাখ টাকা। তবে পছন্দসই ক্রেতা ছাড়া এ পালঙ্কটি বিক্রি করবেন না বলে জানান মিস্ত্রী আশরাফুল। বিভিন্ন ধরনের আল্পনা ও নক্সায় খাটটি অপরূপ শোভা বর্ধন করেছে। বিশেষ করে গ্রামীণ জনপদের আবহমান চিত্র ও শহরের আধুনিকতার সুস্পষ্ট ছাপ রয়েছে। এ খাটের বিভিন্ন চিত্র ও নক্সায় রয়েছে জাতীয় পতাকা, নৌকা, খেজুর গাছ কেটে গাছীর রস আহরণ, তাল গাছে বই পাখির বাসা। খাটে রকমারি লাইটিং, ঝাড় বাতিসহ নানা কারুকার্য।

তথ্যসূত্রঃ Daily gramerkagoj